December 12, 2018
  • আওয়ামী লীগের প্রার্থী যেসব আসনে
  • সংসদ নির্বাচনে বিএনপির ২৪২ আসনের প্রার্থীরা
  • মহাজোটের প্রার্থী ছাড়াও জাপার উন্মুক্ত প্রার্থীরা
  • হাইকোর্টে রিটে বৈধতা পেলেন ১১ প্রার্থী
  • সহজ জয়ে বাংলাদেশের সিরিজ শুরু
  • ‘আপিল চলাকালে দণ্ডিতরা নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে না’
  • নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন না খালেদা জিয়া
  • যে ৬ আসনে ইভিএমে ভোট হবে
  • গোপালগঞ্জ-৩ আসনে শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র দাখিল
  • ইসির সিদ্ধান্ত ইউপি ও পৌর আইনের সাথে সাংঘর্ষিক

বিশ্বে প্রথমে ফাইভ-জি চালু করা দেশগুলোর কাতারে থাকবে বাংলাদেশ: জয়

joy33
বাংলার নিউজ ডট কমঃ ফাইভ-জি সেবার পরীক্ষামূলক কার্যক্রমের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রীর আইসিটিবিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

বুধবার (২৫ জুলাই) রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ফাইভ-জি নেটওয়ার্ক সেবার উদ্বোধন করেন তিনি।

‘বাংলাদেশ ফাইভ জি সামিট’ নামের এই আয়োজনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সজীব ওয়াজেদ জয় বলেন, নিত্য-নতুন প্রযুক্তির প্রতি আমার সংবেদনশীলতার জন্য আমাকে ‘টেকি’ (প্রযুক্তি প্রেমী) বলা যেতে পারে। প্রযুক্তি দুনিয়ায় যা কিছু নতুন আসে সেগুলো আমি আমার জন্য এবং দেশের জন্য চাই। বিশ্বজুড়ে এখন ৫জি নিয়ে আলোচনা চলছে। আজ বাংলাদেশেও আমরা ৫জি আলোচনা শুরু করলাম।

তিনি বলেন, ফাইভ-জি চালুর ক্ষেত্রে বিশ্বের প্রথম শ্রেণির দেশগুলোর কাতারে থাকবে বাংলাদেশ। অন্ধকারকে পেছনে ফেলে আলোকে জয় করেছে বাংলাদেশ। আওয়ামী লীগ সরকার আগামী মেয়াদে ক্ষমতায় এলে ফাইভ-জি এর পরীক্ষামূলক কার্যক্রম থেকে বাস্তবায়ন করবে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ এবং তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, প্রযুক্তি বিকাশের শুরু থেকেই বাংলাদেশ বিশ্বের চেয়ে পিছিয়ে ছিলো। বিনামূল্যে সাবমেরিন কেবল দেয়া হলেও আমরা না নিয়ে পিছিয়ে থেকেছি। এখন বাংলাদেশ প্রযুক্তিতে বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে টেলিযোগাযোগের দ্রুতগতির সর্বাধুনিক সংস্করণ ৫জি শুরুর দিকে যাচ্ছে বাংলাদেশ।

বিশেষ অতিথি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, আওয়ামী লীগ সময়ের চেয়ে এগিয়ে থেকে ভাবে। তাই প্রযুক্তি বিশ্বের সঙ্গে তাল মেলাতে বাংলাদেশে ফোরজি চালুর পরপরই আমরা ৫জি নিয়ে আলোচনা শুরু করেছি।

ঢাকায় ফাইভ-জি নেটওয়ার্ক পরীক্ষা করছে চীনা প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে এবং বেসরকারি মোবাইল অপারেটর রবি।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন- ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব শ্যাম সুন্দর সিকদার, রবির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মাহতাব উদ্দিন আহমেদ, হুয়াওয়ের সাউথ-ইস্ট এশিয়া অঞ্চলের প্রেসিডেন্ট জেমস উ এবং হুয়াওয়ে টেকনোলজিস (বাংলাদেশ) লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ঝ্যাং জেং জুন প্রমুখ ।

বিভাগ - : জাতীয়, তথ্য ও প্রযুক্তি

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন