November 13, 2019
  • কাঁদলেন প্রধানমন্ত্রী
  • যুবলীগ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী মিটিং ডেকেছেন : ওবায়দুল কাদের
  • ভুল বোঝাবুঝিতেই সীমান্তে দুর্ঘটনা : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
  • শেখ রাসেলের জন্মদিন আজ
  • তালিকাভুক্ত এবং আইপিও কোম্পানি অডিট করতে নতুন নির্দেশনা
  • ‘ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করার জন্য আগাছা পরিষ্কারের সিদ্ধান্ত’
  • লোমহর্ষক দুর্নীতির শেকড় আরো গভীরে: টিআইবি
  • ৪ উইকেটে জয় টাইগারদের
  • প্রথা ভেঙে বরের বাড়িতে এসে বিয়ে করলো কনে
  • জি কে শামীম ১০ দিনের রিমান্ডে

টেবিলে পা রেখে আলোচনায় ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী!

ggff
বাংলার নিউজ ডট কমঃ ব্রেক্সিট থেকে বের হওয়ার সময়সীমার মাসখানেক আগে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের সঙ্গে বৈঠক করেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাঁক্রন। প্যারিসের এলিসি প্রাসাদে ওই বৈঠকের একটি ছবি ইতোমধ্যে ভাইরাল হয়ে পড়ে। যা রীতিমত ঝড় তুলছে।

ছবিতে দেখা যায়, ম্যাঁক্রনের সঙ্গে আলাপকালে বরিস জনসন একটি পা টেবিলের ওপর উঠিয়ে কথা বলছেন। তবে বিবিসির খবর বলছে- এ সময় তিনি ম্যাঁক্রনের সঙ্গে মজা করছিলেন। কিন্তু দুই দেশেরই লোকজন বলছেন, পা উঠিয়ে কথা বলার মাধ্যমে ম্যাঁক্রনকে তাচ্ছিল্য করেছেন বরিস জনসন।

এক ভিডিওতে দেখা গেছে, বরিস জনসন একটি কৌতুকের জবাব দিচ্ছিলেন। যে কারণে তিনি হালকা মেজাজে ছিলেন তখন।

এক ব্রিটিশ নাগরিক বলেন, আচার-আচরণে বরিস জনসন ভালো না। ভেবে দেখেন, যদি বিদেশি কোনো প্রধানমন্ত্রী বাকিংহাম প্রাসাদে এসে এমন আচরণ করতেন, তখন ব্রিটিশ ট্যাবলয়েডগুলো কতটা ক্ষোভ প্রকাশ করত।

অন্য আরেকজন বলেন, তারা পরিষ্কারভাবে কোনো ভালো ব্যবহার শিক্ষা দিচ্ছেন না। এক ফরাসি বলেন, আমি অবাক হই- ব্রিটিশ রানি এটি কীভাবে নেবেন।

ফ্রান্সের লি পারিসিয়ান পত্রিকার খবরে বলা হয়েছে- নাহ, ম্যাঁক্রনের সামনের টেবিলে পা রেখে বরিস জনসন ফ্রান্সকে তাচ্ছিল্য করেননি।

এক মাস আগে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হওয়ার পর এই প্রথম বিদেশ সফরে প্রতিবেশী ফ্রান্সে গেলেন জনসন।

বিভাগ - : আন্তর্জাতিক

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন