March 22, 2019
  • ‘কুমুদিনী ট্রাস্টের জন্য আমার দরজা সব সময় খোলা’
  • ব্রিটিশ পার্লামেন্টে এবার ব্রেক্সিট বিলম্বিত করার ভোট
  • ‘নিজেদের দেশের মানুষকে ধোঁকা দিতে আরসিবিসি মামলা করেছে’
  • ‘গ্যাসের দাম বাড়ানো নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি’
  • অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় খালাস চেয়ে খালেদার আপিল
  • নিউলাইনের আইপিও লটারির তারিখ নির্ধারণ: ২৭.৭৫ গুন আবেদন জমা
  • কাদেরের শারীরিক অবস্থা ক্রমশ উন্নতি হচ্ছে
  • ‘৭ মার্চের ভাষণে ছিল জাতি ভবিষ্যৎ বিনির্মাণের ঘোষণা’
  • নারী দিবসে বার্লিনে পুরস্কারে ভূষিত শেখ হাসিনা
  • কারচুপি রোধে ইভিএম ব্যবহার করতে হবে: সিইসি

একাদশ জাতীয় নির্বাচন উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত : ইসি সচিব

ec44
বাংলার নিউজ ডট কমঃ নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব হেলালুদ্দিন আহমেদ বলেছেন, রবিবার অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন জাতীয় জীবনে ‘উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত’ হয়ে থাকবে।

তিনি বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন একটি রাজনৈতিক সরকারের অধীনে অত্যন্ত অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে বিধায় বাংলাদেশের ইতিহাসে এটি বড় ঘটনা হয়ে থাকবে।

নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ে সোমবার এক ব্রিফিংয়ে তিনি এ সব কথা বলেন।

ইসি সচিব বলেন, অনেক দেশি ও বিদেশি পর্যবেক্ষক ভোট গ্রহণ সম্পর্কে তাদের সন্তুষ্টির কথা জানিয়েছেন। এই নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোট টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার গঠনের লক্ষ্যে বিরাট জয় পেয়েছে।

তিনি গণমাধ্যমকে জানান, এই নির্বাচনে ৩০০টি সংসদীয় আসনের মধ্যে ২৯৮টির ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে, তবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের তিনটি কেন্দ্রের নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে। এই তিনটি কেন্দ্রে পুনরায় ভোট গ্রহণ করা হবে।

গাইবান্ধা-২ আসনে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের মনোনীত প্রার্থী ডা. ফজলে রাব্বীর মৃত্যুর কারণে এই আসনটি ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়।

নির্বাচন কমিশন সচিব উৎসবমুখর পরিবেশে এই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার জন্য আওয়ামী লীগসহ সকল রাজনৈতিক দলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন গত এক বছর যাবৎ সাফল্যের সঙ্গে এ নির্বাচন আয়োজনের লক্ষ্যে প্রস্তুতি নিচ্ছিল এবং এই লক্ষ্যে তারা ভোটের তালিকা প্রস্তুত ও ৩০০টি আসনের সীমানা সংক্রান্ত বিরোধ নিষ্পত্তি এবং নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর রিটার্নিং কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা নিয়োগ এবং রাজনৈতিক দলগুলোর সাথে আলাপ আলোচনা করেছে।

হেলালুদ্দিন বলেন, অবাধ ও সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে প্রায় ১৫ লাখ নির্বাচনী কর্মকর্তা ও আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য নিয়োগ করা হয়েছিল। এবারের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ৩৯ রাজনৈতিক দল এবং ১ হাজার ৮৪৬ জন প্রার্থী অংশগ্রহণ করে।

তিনি বলেছেন, ছোটখাটো অনিয়ম ব্যতীত নির্বাচন সুন্দর ও শান্তিপূর্ণ হয়েছে। নির্বাচন আমাদের জাতীয় জীবনের জন্য বড় ইভেন্ট। এই নির্বাচন জাতীয় জীবনের জন্য উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। একটি নির্বাচিত রাজনৈতিক সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে গণতান্ত্রিক ধারাবাহিক প্রক্রিয়া হিসেবে এই নির্বাচন উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।

সংসদ নির্বাচনে ইভিএম চালু প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এবারে প্রথমবারের মতো ছয়টি আসনে পরীক্ষামূলকভাবে ইভিএম ব্যবহার করেছি। এতে অনেক মানুষের মধ্যে কৌতূহল ও আগ্রহের পাশাপাশি ভীতিও ছিল। এটা নিয়ে বিতর্কও ছিল। আমরা সবকিছু অতিক্রম করে ইভিএম অত্যন্ত সফলভাবে ব্যবহার করতে পেরেছি। এই প্রযুক্তি আগামী যত নির্বাচন আসবে সেখানে আমরা ব্যবহার করব। প্রত্যন্ত এলাকা থেকে ফলাফল আনার কারণে আমাদের একটু দেরি হয়েছে। ভবিষ্যতে ইভিএমে ফলাফল আর দ্রুত দেয়া হবে।

সচিব বলেন, আমাদের আরেকটি বড় দায়িত্ব হচ্ছে ফলাফলের গেজেট প্রকাশ করা। এই গেজেট প্রকাশ হলে তা স্পিকারের কাছে হস্তান্তর করব। তিনি এর পরবর্তী কার্যক্রম শুরু করবেন। সংসদ সদস্যদের শপথ গ্রহণের মাধ্যমে নতুন সরকার গঠনের প্রক্রিয়া শুরু হবে।

বিভাগ - : জাতীয়

কোন মন্তব্য নেই

মন্তব্য দিন